আমার নেতা শেখ মুজিব

admin

কে এম টিপু সুলতান : বাংলাদেশের কথা বলতে গিয়ে অনিবার্যভাবে এসে যায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নাম; যিনি দেশের স্বার্থ ও জনগণের স্বার্থের জন্য নিজের স্বার্থকে জলাঞ্জলি দিয়েছিলেন। এ কারণেই বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ এক-অভিন্ন। কবি-মনীষী অন্নদাশঙ্কর রায় বাংলাদেশের আরেক নাম রেখেছেন ‘মুজিব ল্যান্ড’।

এক অর্থে বঙ্গবন্ধুই বাংলাদেশের ইতিহাস। তার জীবন ও ইতিহাস পর্যালোচনা করলেই বাংলাদেশের স্বাধীনতা আন্দোলনের বিশেষ সময়ের কথা আমরা জানতে পারি।

কিশোর বয়স থেকেই প্রতিবাদী ছিলেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। সর্বদা সত্য ও ন্যায়ের কথা বলেছেন। সত্য ও ন্যায়ের পথ থেকে তিনি কখনও দূরে সরে যাননি। ভীতি ও অত্যাচারের মুখেও সর্বদা সত্য ও ন্যায়ের পথে থেকে শোষিত মানুষের অধিকারের কথা বলেছেন। আর এভাবেই তিনি হয়ে ওঠেন স্বাধীনতার মূর্ত প্রতীক।

Next Post

ধানকাটা কর্মসূচি সফলতায় অগ্রণী ভূমিকা পালন করে ছাত্রলীগ : প্রধানমন্ত্রী

বিশেষ প্রতিনিধি :: করোনাভাইরাস সংকটের মধ্যে ধান তোলায় বিপাকে পড়া কৃষকের সহযোগী হয়ে মাঠে নেমেছে ছাত্রলীগ। বিভিন্ন জেলায় দলবেঁধে ঐতিহ্যবাহী ছাত্র সংগঠনটির নেকাতর্মীরা ধান কেটে কৃষকের ঘরে তুলে দিচ্ছেন। করোনাভাইরাস অতি সংক্রামক হওয়ার কারণে সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করতে চলছে সরকার ঘোষিত ছুটি। আর এপ্রিল থেকে মে মাস হলো বোরো ধান […]